ত্বক

ত্বককে নিখুঁত দেখাবার জন্য মেকআপের ৫ টি টিপস

নিখুঁত ফর্সা সুন্দর ত্বক সব মেয়েদের কাম্য। কিন্তু খুব কম মেয়েরাই নিখুঁত ত্বক পেয়ে থাকেন। ব্রণের দাগ(Acne scars), সান বার্ন, ব্রণ বিভিন্ন কারণে ত্বকে কালো দাগ পড়ে ও ক্ষত সৃষ্টি হয়। ত্বকের যে কোন ত্রুটি ঢেকে দেওয়া সম্ভব মেকআপের মাধ্যমে। এর জন্য যে খুব বেশি মেকআপ(Makeup) করার প্রয়োজন তা কিন্তু নয়। কয়েকটি ধাপে খুব সহজে মেকআপের মাধ্যমে পেয়ে যেতে পারেন নিখুঁত ত্বক।

১। এসপিএফযুক্ত ময়োশ্চারাইজ ব্যবহার
মেকআপ লাগানোর আগে এসপিএফযুক্ত ময়োশ্চারাইজ ব্যবহার করুন। এটি সূর্যের ক্ষতিকর রশ্মি থেকে ত্বককে রক্ষা করে। আর ময়েশ্চারাইজার ত্বকের রুক্ষতা দূর করে এবং ত্বকে খুব সহজে মেকআপ(Makeup) মিশে যেতে সাহায্য করে থাকে।

২। প্রাইমার ব্যবহার
ময়েশ্চারাইজার লাগানোর পর স্যালিকা সমৃদ্ধ লাইট প্রাইমার ব্যবহার করুন। প্রাইমার বলিরেখাসহ ত্বকের যে কোন সুক্ষ্ম দাগ ঢেকে দিয়ে ত্বক নিখুঁত করে তোলে।

আরো পড়ুন  ত্বক সুন্দর ও উজ্জ্বল করতে অ্যালোভেরা জেলের ৫টি ব্যবহার

৩। কনসিলার
ত্বকের দাগ ঢাকার কাজ করে থাকে কনসিলার। চোখের নিচে কালি, এবং এর চারপাশে কালো স্থানে কনসিলার দিন। আলতোভাবে হাতে ভালভাবে ম্যাসাজ করে মেশান। লক্ষ্য রাখবেন খুব বেশি কনসিলার যেন ব্যবহার করা না হয়।

৪। ফাউন্ডেশনের ব্যবহার
সিলিকনযুক্ত লিকুইড ফাউন্ডেশন ব্যবহার করুন। ম্যাট ফাউন্ডেশন(Foundation) ব্যবহার করা থেকে বিরত থাকুন। এটি ত্বককে আরও বেশি বয়স্ক দেখাবে। লিকুইড ফাউন্ডেশন লাগিয়ে আঙুল দিয়ে এমনভাবে ম্যাসাজ করবেন, যেন ত্বকের সাথে ভাল করে মিশে যায়। খুব বেশি ফাউন্ডেশন লাগাবেন না। নাকে, কপালে, গালে অল্প করে ফাউন্ডেশন লাগান। তারপর ম্যাসাজ করুন। ম্যাসাজ একপাশে বা নিচের দিকে করুন। উপরের দিকে ম্যাসাজ করবেন না, এতে মেকআপ(Makeup) ফেটে যাওয়ার সম্ভাবনা থাকে।

আরো পড়ুন  ত্বকে উজ্জ্বলতা ভাব আনবে আলুর ফেসপ্যাক কীভাবে ব্যবহার করবেন?

৫। ব্লাশন ব্যবহার
চিবুক, দুই গালের পাশে ব্লাশন ব্যবহার করুন। হালকা ব্লাশন লাগিয়ে ব্রাশে সাহায্যে সেটি ত্বকে ছড়িয়ে দিন। এটি ত্বকে একটি প্রাকৃতিক গ্লো এনে দেবে।

সবশেষে আপনি চাইলে ট্রান্সলুসেন্ট পাউডার গালে, নাকে, এবং কপালে লাগাতে পারেন। এটি আপনাকে শাইনি একটি লুক দেবে।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *