ফর্সা হতে

ফর্সা হতে চাইলে ব্যবহার করুন এই ৭টি ফলের খোসা

ভাবছেন কী আবোল-তাবোল বকছি, তাই তো? কিন্তু বাস্তবিকই ফলের খোসা ত্বককে উজ্জ্বল করতে দারুণ কাজে আসে। কারণ এতে রয়েছে একাধিক পুষ্টিকর (nutritious ) উপাদান, যা ত্বকের স্বাস্থ্যের উন্নতি (skin’s health) ঘটিয়ে ত্বককে ফর্সা এবং প্রাণবন্ত করে তোলে। ফর্সা ত্বক (ফেয়ার skin) পেতে কে না চায় বলুন। তাই তো গত কয়েক বছরে সারাবিশ্বে বিউটি প্রডাক্টের রমরমা এত চোখে পড়ার মতো বেড়েছে। কিন্তু বিউটি প্রোডাক্টের খরচ অনেক বেশি। তাই আপনার জন্যই এই লেখা। ফলের খোসাতে যেমন অনেক ধরনের পুষ্টিকর উপাদান থাকে, তেমনি নানা ধরনের ভিটামিনও থাকে প্রচুর পরিমাণে। তাই তো ত্বকের সৌন্দর্য বৃদ্ধিতে এদের কাজে লাগানোর পরামর্শ দেন বিশেষজ্ঞরাও।

অনেকে আবার মনে করেন কেবল মাত্র কমলা লেবুর খোসা(Lemon pea) শরীরের পক্ষে ভালো, বাকি ফলের বহিরাংশ একেবারেই স্বাস্থ্যকর নয়। এই ধরণা কিন্তু একেবারেই ঠিক নয়। তাই তো এই লেখার মাধ্যমে আপনাদের জানাতে চলেছি কোন কোন ফলের খোসা ত্বককে সুন্দর করে, সে সম্পর্কে।

আরো পড়ুন  ত্বকের রঙ উজ্জ্বল ফর্সা করতে অ্যালোভেরা ফেসপ্যাক

১. কলার খোসা(Collar shell)
একাধিক ত্বকের রোগ সারানোর পাশাপাশি কলার খোসায় উপস্থিত ভিটামিন(Vitamin) এবং পুষ্টিকর উপাদান ত্বককে উজ্জ্বল এবং প্রাণবন্ত করতেও গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা পালন করে থাকে। তাই তো সপ্তাহে কম করে দুইবার কলার খোসা ভালো করে মুখে ঘষার অভ্যাস করুন। এমনটা করলে দেখবেন অল্প দিনেই ত্বক সুন্দর হতে শুরু করেছে।

২. কমলালেবুর খোসা (Orange peel)
একাধিক প্রসাধনিতে কমলালেবুর খোসা দিয়ে তৈরি পাউডার ব্যবহার করা হয়। কেন জানেন? কারণ ত্বককে সুন্দর করতে এর কোনো বিকল্প হয় না বললেই চলে। তাই তো প্রতিদিন যদি কমলালেবুর খোসা মুখে ঘষা যায়, অথবা এটা দিয়ে বানানো কোনো ফেসপ্যাক(Face pack) মুখে লাগানো যায়, তাহলে ফর্সা ত্বক পাওয়ার স্বপ্ন পূরণে একেবারেই সময় লাগে না।

আরো পড়ুন  তৈলাক্ত ত্বকের জন্য সেরা ৫টি ফেসপ্যাক এর নাম ও ব্যবহার জেনে নিন

৩. পেঁপের খোসা(Papaya peel)
সেই আদি কাল থেকে ত্বককে সুন্দর করতে পেঁপের খোসার ব্যবহার হয়ে আসছে। কারণ এতে উপস্থিত একাধিক পুষ্টিকর উপাদান ত্বককে উজ্জ্বল করতে গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা পালন করে থাকে।

৪. ডালিম খোসা(Pomegranate peel)
এতে রয়েছে এমন কিছু উপাদান, যা ত্বকের উপরি-অংশে জমে থাকা মৃত কোষের আস্তরণকে সরিয়ে ফেলে। সেই সঙ্গে ত্বকের পি এইচ লেভেলকে স্বাভাবিক করে ত্বককে উজ্জ্বল করে তোলে।

৫. আপেলের খোসা(Apple peel)
এতে রয়েছে প্রচুর মাত্রায় স্কিন হোয়াইটনিং প্রপার্টিজ। যে কারণে প্রতিদিন এটি মুখে লাগালে ত্বক(Skin) অল্প দিনেই ফর্সা হতে শুরু করে। প্রসঙ্গত, ভালো ফল পেতে প্রথমে আপেলের খোসাটা ছাড়িয়ে নিন। তারপর খোসাগুলি একবাটি পানিতে ডুবিয়ে কিছুক্ষণ গরম করুন। যখন দেখবেন পানিটা ঠাণ্ডা হয়ে গেছে, তখন সেটা ধীরে ধীরে সারা মুখে লাগিয়ে ফেলুন। এমনটা কয়েক সপ্তাহ করলেই ফল পাবেন একেবারে হাতে-নাতে।

আরো পড়ুন  শুষ্ক ত্বকের যত্ন নেওয়ার ঘরোয়া উপায় জেনে নিন

৬. লেবুর খোসা (Lemon pea)
ত্বক উজ্জ্বল করতে লেবুর রসের ভূমিকা নিয়ে কারো মনে সন্দেহ না থাকলেও লেবুর খোসাও যে একই কাজ করে, তা অনেকে বিশ্বাস করতে চান না। কিন্তু এ কথা ঠিক যে লেবুর খোসা(Lemon pea) দিয়ে বানানো পাউডার ফেস প্যাকের সঙ্গে মিশিয়ে মুখে লাগালে দারুণ ফল পাওয়া যায়। এই মিশ্রনটি ত্বককে উজ্জ্বল করার পাশাপাশি নানা রকমের রোগের হাত থেকেও রক্ষা করে।

৭. নাসপাতির খোসা (Pear peel)
এতে রয়েছে ফাইবার, যা ত্বককে উজ্জ্বল করতে গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা পালন করে থাকে। প্রসঙ্গত, এটি সরাসরি মুখে না লাগিয়ে এক বাটি পানিতে কিছুক্ষণ চুবিয়ে রেখে ওই পানিটা কিছুক্ষণ গরম করে নিন। তারপর সেই পানিটা সারা মুখে লাগান। মাসে মাত্র একবার এইভাবে নাসপাতির খোসা মুখে লাগালেই দেখবেন ত্বক কেমন ফর্সা হয়ে ওঠে।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *