পেটের চর্বি কমাতে আলাদা সহজ ব্যায়াম শিখে নিন

খাবার নিয়ন্ত্রণ করছেন, নিয়মিত হাঁটাহাঁটিও করছেন, ওজনও (weight) একটু একটু করে কমছে, কিন্তু পেটটা তো কিছুতেই কমছে না। অনেকেই এ অভিযোগ করে থাকেন। পেটের চর্বি (fat)বা মেদ দেহের অন্যান্য মেদের চেয়ে আলাদা এবং বেশি ক্ষতিকর।

শরীরের অন্য অংশের মেদ সাধারণত ত্বকের নিচে জমে থাকে। কিন্তু পেটের মেদ ত্বকের নিচে ও পাশাপাশি যকৃৎ, কিডনি ও অন্যান্য অভ্যন্তরীণ অঙ্গের গায়ে লেগে থাকে। তাই পেটের চর্বির (fat)সঙ্গে হূদেরাগ, উচ্চ রক্তচাপ, ডায়াবেটিস ও অন্যান্য সমস্যার জোরালো সম্পর্ক (relation) রয়েছে।

অনেকেই পেটের চর্বি (fat) কমানোর জন্য বেলি স্ট্রোক অর্থাৎ পেটের মাংসপেশির ব্যায়াম করে থাকেন। কারও ধারণা, পেটের চর্বি (fat)সাধারণ ব্যায়ামে কমে না। এর জন্য আলাদা ব্যায়াম করতে হবে। কিন্তু আলাদা ব্যায়ামে পেটের পেশির আকৃতি সুন্দর হলেও চর্বি (fat)কমাতে খুব একটা কাজে আসে না। পেটের চর্বি কমাতে দেহের সার্বিক পরিশ্রম বা ব্যায়াম এবং সঙ্গে স্বাস্থ্যকর খাদ্যাভ্যাসই যথেষ্ট।

আরো পড়ুন  যে চার ধরনের লোক ভুল করেও বেদানা খাবেন না, নাহলে দেখা দিতে পারে সমস্যা

সপ্তাহে চার দিন আধঘণ্টা অ্যারোবিক ব্যায়াম দেহের অন্যান্য মেদের সঙ্গে পেটের মেদকেও কমিয়ে আনবে। জগিং, ট্রেডমিল, সাইকেল চালানো ইত্যাদি হলো এ ধরনের ব্যায়াম। কেউ দ্রুত পেটের চর্বি (fat)ভাঙতে চাইলে আরেকটু বেশি ব্যায়ামের দরকার হতে পারে। ৪০ থেকে ৪৫ মিনিট হালকা জগিং বা জোরে হাঁটার পর দেহে সঞ্চিত চর্বি ভাঙতে শুরু করে এবং পেশি তা ব্যবহার করে। এই সময়ের পর আরও ১০ থেকে ১৫ মিনিট জগিং করলে বা জোরে হাঁটলে প্রতিদিন একটু একটু করে জমানো চর্বি (fat)কমতে থাকবে।

এর সঙ্গে চর্বি (fat)ও তেলযুক্ত খাদ্য পরিহার করে প্রচুর পরিমাণে আঁশজাতীয় খাদ্য ও শাকসবজি গ্রহণ করতে হবে। পরিমিত আহার করতে হবে। প্রতিদিন অন্তত ১০ গ্রাম আঁশ খেতে হবে। মেদ কমানোর সাধারণ এসব উপায়ে দেহের অন্য অংশের মেদের সঙ্গে পেটের চর্বিও (fat)কমবে। এর জন্য আলাদা ব্যায়ামের দরকার হবে না।

আরো পড়ুন  শরীরের ফেটে যাওয়া দাগ সারানোর ৫টি ঘরোয়া উপায় শিখুন

প্রতিবেশি আন্টির সাথে যৌন সম্পর্ক (relation) থেকে কিভাবে মুক্ত হব?

প্রশ্ন – আমার বয়স আঠার। আমার পাশের ফ্ল্যাটের আন্টি আমাকে সিডিউস করত। প্রায় ছমাস আগে ওনার সাথে আমার আন্টির সাথে যৌন সম্পর্ক (relation) গড়ে ওঠে। পাশাপাশি হওয়ায় আমরা অবাধে প্রতিদিন তিন থেকে চার বার সংগম করি। এখনও চলছে। আমি নাস্তিক তাই পাপ বোধ নেই। কিন্তু আমার বয়স কি যৌন সঙ্গম (physical relation) করার উপযুক্ত? আমার কি কোন শারীরিক সমস্যা হতে পারে?(আমরা কনডম ইউস করি)। এই সম্পর্ক(relation) থেকে মুক্ত হব কিভাবে?

পরামর্শঃ

আপনার বয়স অবশ্যই যৌন সঙ্গম (physical relation) করার জন্য উপযুক্ত। যেহেতু আপনি কনডম ব্যবহার করছেন তাই শারীরিক সমস্যা হবার সম্ভাবনাও সীমিত। কাজেই এই দুটি দিক থেকে দেখতে গেলে আন্টির সাথে যৌন সম্পর্ক (relation) নিয়ে চিন্তা করার বিশেষ কোন কারণ নেই। আপনি এটাও লিখেছেন যে আপনার পাপবোধ নেই। তাহলে এই সম্পর্ক (relation) থেকে মুক্ত হতে চাইছেন কেন? আসলে আপনি নাস্তিক হলেও আপনার মনে মনে এক ধরনে অপরাধবোধ কাজ করছে এই অবৈধ সম্পর্কের জন্য। লোক জানাজানির ভয়ও হতে পারে। এছাড়া আপনার এখন নিজের বয়সি মেয়েদের সাথে সম্পর্ক (relation) করার বয়স। খুব শীঘ্রই হয়তো আপনি প্রেম করবেন। সেক্ষেত্রে আন্টির সাথে সম্পর্ক (relation) একটা বড় বাধা হতে পারে। তাই আন্টির সাথে যৌন সম্পর্ক এখনই পরিত্যাগ করাই ভাল। নাহলে আপনার ভবিষ্যত নষ্ট হতে পারে।

আরো পড়ুন  করোনাভাইরাস থেকে সেরে উঠতে কত দিন লাগে?

Leave a Reply

Your email address will not be published.