জামাই সেবা পৃথিবীর সবচেয়ে বড় সেবা : মাশরাফি

করোনা ভাইরাস এর প্রাদুর্ভাবের কারণে সাধারণ মানুষের মতো বাংলাদেশ জাতীয় দলের ক্রিকেটাররা নিজেদেরকে সচেতন অবস্থায় রাখতে কড়াকড়ি ভাবে লকডাউন নিষেধাজ্ঞা পালন করে যাচ্ছেন এবং তারা বিনা প্রয়োজনে ঘরের বাইরে বের হচ্ছেন না পরিবারের সাথে বেশ ভালো

সময় তারা কাটিয়ে যাচ্ছেন প্রতিনিয়ত। সম্প্রতি মাশরাফি বিন মর্তুজা পোস্ট করা একটি ছবি দেখে সেটি ভালোভাবেই বোঝা যাচ্ছে যে তিনি তার পরিবারের সাথে বেশ ভালো সময়

কাটাচ্ছেন। একটি ছবিতে দেখা যায় তার স্ত্রী সুমনা হক সুমি তার মাথায় মেহেদি লাগিয়ে দিচ্ছেন এবং তিনি সেটি ক্যাপশন দিয়ে স্বামীর সেবা পৃথিবীর বড় সেবা হিসেবে উল্লেখ করেছেন

প্রাণঘাতী করোনা পরিস্থিতির কারণে দীর্ঘ সময় লকডাউন ছিল পুরো দেশ। এ সময়টায় ঘরবন্দি অবস্থাতেই সময় কাটাতে হয়েছে সবাইকে। অনেকের জন্যই এটা বিরক্তির কারণ হয়ে

আরো পড়ুন  GramFree থেকে মোবাইল দিয়ে ভিডিও দেখে আয় করুন সব থেকে সহজ উপায়ে

উঠেছিল। জাতীয় দলের অনেক ক্রিকেটারই বিরক্তির কথা জানিয়েছেন। তবে কেউ কেউ এখানেও ইতিবাচক দিক খুঁজে পেয়েছেন।পরিবারের সঙ্গে এতটা সময় থাকার সুযোগ

কখনই পান না ক্রিকেটাররা। সেদিক থেকে সময়টা মন্দ কাটেনি ক্রিকেটারের।অন্যসব ক্রিকেটারদের মতো মাশরাফি বিন মুর্তজাও পরিবারের সঙ্গে সময় পার করেছেন। নড়াইল-২

আসনের সংসদ সদস্য হিসেবে দায়িত্ব পালন করলেও ঘরের বাইরে খুব একটা যাননি সাবেক এই অধিনায়ক। ঘরবন্দি অবস্থায় পরিবারের সঙ্গে যে ভালোই সময় কাটছে তার, সেটা

বোঝা গেছে একটি ছবি দেখে।সামাজিক যোগাযোগমাধ্যম ফেসবুকে ব্যক্তিগত অ্যাকাউন্ট থেকে একটি ছবি পোস্ট করেছেন মাশরাফি। ছবিতে দেখা যায় মাশরাফি মাথায় মেহেদী লাগিয়ে

দিচ্ছেন তার স্ত্রী সুমনা হক সুমি।ছবিটি পোস্ট করে মাশরাফি ক্যাপশন হিসেবে লিখেছেন, ’জামাই সেবা পৃথিবীর সবচেয়ে বড় সেবা। এভাবে জামাইকে সেবা করে যাও এবং দীর্ঘজীবি

আরো পড়ুন  চাকরি ছেড়ে ২০১৬ সালে ১২ হাজার টাকায় ব্যবসা শুরু, আজ এই নারী কোটিপতি

হও।’পরিবারের সঙ্গে বর্তমানে ঢাকায় আছেন মাশরাফি। এরআগে দীর্ঘ সময় নড়াইলে থেকে দুস্থ-অসহায়দের পাশে দাঁড়িয়েছেন তিনি। সরকারি অনুদান ছাড়াও ব্যক্তিগতভাবে করোনাভাইরাস দুর্গতদের সাহায্য করেছেন জাতীয় দলের অভিজ্ঞ এই ক্রিকেটার।দেশে চলমান ঘটনা ভাইরাসের কারণে মানুষ এক রকম

বিপর্যস্ত অবস্থার মধ্য দিয়ে দিনযাপন করছেঅঘোষিত লঙ্ঘনের কারণে দীর্ঘ দুই মাসেরও বেশি সময় যাবৎ মানুষ ঘর বন্দী অবস্থায় থেকেছে তবে সম্প্রতি প্রত্যাহার করা হয়েছে

সাধারণ ছুটি এবং আস্তে আস্তে মানুষ তাদের কর্মক্ষেত্র গুলোতে ফিরতে শুরু করেছে এবং জনজীবন আস্তে আস্তে স্বাভাবিক পর্যায়ে ফিরে আসছে মূলত সরকার বলছে যে

জনসাধারণকে আর্থিকভাবে ক্ষতির মুখ থেকে বাঁচাতে এমন সিদ্ধান্ত নিয়েছে তারা তবে পরিস্থিতি যাই হোক না কেন স্বাস্থ্যবিধি মেনে চলার আহ্বান সবার প্রতি। চলমান এই অবস্থার মধ্যে দেশের ক্রিকেটাররা ও নিজেদেরকে গর্ভবতী অবস্থায় রেখেছে এবং পরিবারের সাথে তারা সময় কাটাচ্ছে

আরো পড়ুন  প্রতিদিন গোসলের সময় আমরা যে সাধারণ ভুলগুলো করে থাকি

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *