শাড়ি পরার সময় যে বিষয়গুলো অবশ্যই লক্ষ্য রাখা উচিত

শাড়ি(Sari) বাঙালি নারীর ঐতিহ্য। শাড়িতেই যেন বাঙালি নারীর সৌন্দর্য ফুটে উঠে পুরোপুরি। আর শাড়ির সাথে হালকা সাজ হলে তো কথাই নেই। শাড়ি(Sari) এবং হালকা সাজে একজন নারী হয়ে ওঠেন পরিপূর্ণ। শাড়ি(Sari) পরার সময় কিছু বিশেষ বিষয়ের দিকে অবশ্যই লক্ষ্য রাখা উচিত। এই বিষয়গুলো শাড়ি পরার সময় লক্ষ্য না করলে কষ্ট করে শাড়ি পরাটাই মাটি হয়ে যেতে পারে। জেনে নিন কিছু বিষয় সম্পর্কে যেগুলো শাড়ি(Sari) পরার সময় অবশ্যই লক্ষ্য রাখা উচিত।

১) শাড়ি পড়ার সময়ে অবশ্যই খেয়াল রাখুন যেন পেটিকোট শক্ত করে বাঁধা হয়। নাহলে কিছুক্ষণ পর পর আপনার শাড়ি পায়ের নিচে চলে যাবে এবং হিলে টান লেগে ছিড়ে যেতে পারে।

আরো পড়ুন  ত্বকের রঙ ফর্সাকারী সেরা ১০টি হোয়াইটেনিং ক্রিম সম্পর্কে জেনে নিন

২) পেটিকোট খুব বেশি উপরে পরবেন না কিংবা একদম নিচেও পরবেন না। পেটিকোট নাভির(Navel) খুব বেশি উপরে কিংবা নাভির অনেক বেশি নিচে পড়লে বিচ্ছিরী দেখাবে শাড়ি(Sari) পড়লে।

৩) শাড়ি পরার সময় লক্ষ্য রাখুন ব্লাউজের ফিটিং যেন ঠিকমত হয়। খুব বেশি আঁটসাঁট ব্লাউজে(Blouse) আপনার পিঠের মেদ বোঝা যাওয়ার সম্ভাবনা বেশি থাকে। আবার একদম ঢিলে ঢালা ব্লাউজেও আপনাকে দেখতে স্মার্ট দেখাবে না।

৪) উপলক্ষ্য বুঝে শাড়ি নির্বাচন করুন। কখন কোন শাড়ির ফ্যাশন চলছে সেই বিষয়টিও লক্ষ্য রাখুন।

৫) ব্লাউজের পিঠ বড় ডিজাইনের দিলে খেয়াল রাখুন যেন ব্রায়ের ফিতা দেখা না যায়। প্রয়োজনে সেইফটিপিন দিয়ে ব্রায়ের ফিতা আটকে রাখুন যেন ব্লাউজের বাইরে দেখা না যায়।

৬) শাড়ির সাথে সঠিক জুতা নির্বাচন করাটাও জরুরী। শাড়ির সাথে কখনই ফ্ল্যাট জুতা বা স্লিপার পড়া উচিত নয়। কিংবা একটু স্পোর্টি ধরণের ডিজাইনের জুতাও একেবারেই বেমানান লাগবে শাড়ির সাথে। অল্প বা বেশি হিলযুক্ত ম্যাচিং জুতা পরতে পারেন আপনার শখের শাড়িটির সাথে।

৭) শাড়ির সাথে খুব বড় ব্যাগ না নেয়াই ভালো। ছোট খাটো ক্ল্যাচ ব্যাগ(Clutch bag) নিলেই বেশি মানাবে শাড়ির সাথে। সেই সঙ্গে শাড়ির সাথে ব্যাগ সামলানোও সহজ হবে আপনার জন্য।

৮) সেইফটিপিন শাড়ি(Sari) পরার অন্যতম আনুসাঙ্গিক। কিন্তু অতিরিক্ত সেইফটিপিনের ব্যবহার শাড়ির সৌন্দর্য নষ্ট করে দিতে পারে। তাই সেইফটিপিন ব্যবহারের ক্ষেত্রে একটু সতর্ক থাকুন।

৯) শাড়ির সাথে একটু মেকআপ(Makeup) না হলে কি চলে? কিন্তু শাড়ির সাথে মুখে যদি অতিরিক্ত রঙচঙে মেকআপ করে ফেলেন তাহলে শাড়ির সৌন্দর্য অনেকটাই ম্লান হয়ে যায়।

আরো পড়ুন  ফেসিয়াল হেয়ার তোলার কিছু ঘরোয়া সহজ উপায় জেনে নিন

১০) শাড়ির সাথে গহনা নির্বাচনেও চাই সতর্কতা। বিশেষ করে শাড়ি(Sari) গর্জিয়াস হলে কোমরের গহনা এবং গলার মালা অতিরিক্ত জবড়জং না হওয়াই ভালো।

১১) শাড়ি(Sari) পরলে আত্মবিশ্বাসের সাথে চলাফেরা করুন। সোজা হয়ে দাঁড়ান, মেরুদন্ড(Spine) সোজা করে বসুন। এতে আপনাকে আরো সুন্দর ও স্মার্ট দেখাবে।

Leave a Reply

Your email address will not be published.