ভেতর থেকে গায়ের রঙ ফর্সা করার সহজ ১টি কার্যকরী উপায়

নিজেকে সুন্দর দেখাতে কে না চায়! সবাই চায় নিজেকে সবার মাঝে অনেক বেশি সুন্দর দেখাতে। তবে অনেকেরই আক্ষেপ থাকে গায়ের রঙ ফর্সা (fair skin) নিয়ে। গায়ের রঙ ফর্সাকারী ক্রিমের (cream) কদর তাই কমে না কখনোই। কিন্তু আসলে সত্যিই কি স্থায়ীভাবে এসব ক্রিমে গায়ের রঙ ফর্সা হয়? মুখের রঙ হয়তো একটুখানি উজ্জ্বল হয়, কিন্তু পুরো শরীরের ত্বক?

প্রাচীন ভারতীয় চিকিত্‍সাশাস্ত্র আয়ুর্বেদে রয়েছে এমন অনেক পদ্ধতি যেগুলো সত্যিই গায়ের রঙ ফর্সা (fair) করতে সাহায্য করে। ঘরোয়া ভাবে গায়ের রঙ ফর্সা করার রয়েছে সহজ একটি উপায়। কী সেটা? জেনে নিন।

উপকরণঃ
১। দুধ- তিন টেবিল চামচ
২। কাঁচা হলুদ বাটা- এক চা চামচ
৩। লেবুর রস- এক টেবিল চামচ

আরো পড়ুন  মাত্র ৭ দিনে নজরকাড়া ফর্সা ত্বক পাওয়ার জাদুকরী ঘরোয়া উপায়

প্রনালি ও ব্যবহার
প্রথমে দুধ (milk), লেবুর রস ও হলুদ গুঁড়ো একসঙ্গে ভালভাবে মিশিয়ে একটি মিশ্রন বা পেস্ট তৈরি করুন। আপনার সারা মুখে এই পেস্ট ভালভাবে লাগিয়ে প্যাকটি শুকনো হওয়া পর্যন্ত অপেক্ষা করতে থাকুন। ভালভাবে শুকিয়ে গেলে ঠান্ডা জল(Cold water) দিয়ে পরিষ্কার করে ধুয়ে নিয়ে নরম তোয়ালে দিয়ে আলতো করে মুছে ফেলুন। তবে সতর্কতা হল, গরম জলে মুখ(Face) ধোবেন না এবং অন্তত ১২ ঘণ্টা রোদে যাবেন না। তাই আপনি এটা রাতে করবেন।

দুধ ও কাঁচা হলুদ –
রূপচর্চায় দুধ(milk) ও কাঁচা হলুদের ব্যবহার যুগ যুগ ধরে হয়ে আসছে। প্রতিদিন সকালে এক গ্লাস উষ্ণ গরম দুধে আধা চা চামচ কাঁচা হলুদ বাটা মিশিয়ে নিয়মিত পান করুন। এভাবে পান করতে না পারলে এর সঙ্গে একটু মধু মিশিয়ে নিন। নিয়মিত হলুদ মেশানো দুধ(milk) পান করলে প্রাকৃতিক ভাবে আপনার গায়ের রঙ(Skin color) হয়ে উঠবে ভেতর থেকে উজ্জ্বল ও ফর্সা।

আরো পড়ুন  দাগমুক্ত ফর্সা ত্বক পেতে ব্যবহার করুণ মধুর কিছু ফেসপ্যাক

আমাদের পোষ্টগুলো আপনার বিন্দু মাত্র উপকারে আসলে শেয়ার করবেন প্লিজ। আপনাদের কোন অভিযোগ বা প্রশ্ন থাকলে কমেন্টে করতে পারেন। ধণ্যবাদ।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *