সৌন্দর্য পরামর্শ আকর্ষণীয় ব্রাইডাল সাজের ৭টি গোপন টিপস

নারীদের জীবনে বিয়ের সাজটি হচ্ছে অন্যতম গুরুত্বপূর্ণ একটি ব্যাপার। বিয়ের দিনে প্রত্যেক নারীই মনেপ্রানে কামনা করেন যে তাঁকে দেখতে লাগুক অপ্সরাদের মতন, প্রতিটি মানুষের দৃষ্টি কেবল তাঁরই প্রশংসা করুক। আর বিশেষ দিনটিকে আরও বেশী বিশেষ করে তুলতেই ব্রাইডাল (bridal) মেকআপের আয়োজন। আজকাল সমস্ত পার্লারেই বিয়ের সাজের হরেক রকম প্যাকেজ পাওয়া যায়। বিখ্যাত মেকআপ (Makeup) আর্টিস্ট থেকে শুরু করে সাধারণ বিউটিশিয়ানরাও ব্রাইডাল মেকআপ করে থাকেন নানান রকম মূল্যে।

কিন্তু কীভাবে নিশ্চিত করবেন বিয়ের দিনে আপনার সাজটি নিখুঁত হবে? যত বড় মেকআপ আর্টিস্টের কাছেই সাজুন না কেন, কিছু টিপস জানতে হবে আপনার নিজেকেই। যাদের বিয়ে সামনে, তাঁরা পড়ে নিতে পারেন এই ফিচারটি।

আরো পড়ুন  দাগহীন ত্বকের জন্য দই এর ব্যবহার

১) বিয়ে (Marriage ) মানেই অসংখ্য ছবি এবং ওয়েডিং ফটোশুট। আপনার কাছে যদি ছবি তোলাটাই সবচাইতে বেশী গুরুত্বপূর্ণ হয়, তাহলে অবশ্যই মেকআপ আর্টিস্টকে বলবেন ক্যামেরা Makeup দিতে। ক্যামেরায় ফটোজেনিক দেখাতে ভারী মেকআপের প্রয়োজন নয়। অন্যদিকে বাস্তবে যদি ছিমছাম লুক চান, সেটাও মেকআপ আর্টিস্টকে আগেই বুঝিয়ে বলবেন।

২) নিজের আসল ত্বকের চাইতে ৫/৬ শেড বেশী ফর্সা হয়ে গেলে মানুষের চেহারাই বদলে যায় আসলে। নিজের বিয়ের ছবিতে নিজেকেই যদি অপরিচিত দেখায়, তবে কি ভালো লাগবে? মোটেও না। ব্যাপারটা হাস্যকরও বটে। মেকআপ (Makeup) আর্টিস্টকে আপনি নিজেই নির্বাচন করে দিন যে গায়ের রঙটি কেমন রাখবেন।

৩) যেদিন সাজবেন, তাঁর কয়েকদিন আগেই মেকআপ আর্টিস্ট বা বিউটিশিয়ানের সাথে দেখা করে ও কথা বলে নিন বিস্তারিত। সম্ভব হলে নিজের বিয়ের শাড়ি গহনাও দেখান এবং খুলে বলুন আপনি ঠিক কী চাইছেন। এতে তিনি চিন্তাভাবনা করার সময় পাবেন এবং আপনিও সুযোগ পাবেন আরও ভেবে দেখার।

আরো পড়ুন  নিখুঁত ত্বকের জন্য রাতের ২টি ফেসিয়াল মাস্ক

৪) মেকআপ যতই ভালো হোক না কেন, আপনার ত্বক(Skin) ও চোখ যদি সুন্দর ও উজ্জ্বল না হয় তাহলে দেখতে ভালো লাগবে না মোটেও। তাই বিউটি এক্সপার্টদের পরামর্শ মেনে মাস খানেক সময় হাতে রেখেই রূপচর্চা শুরু করুন, ভালো খান, পর্যাপ্ত ঘুমান। আসল সৌন্দর্য মেকআপে নয়, আপনার মাঝে।

৫) মেকআপ (Makeup) করা হয়ে গেলে নিজেই নিজের কিছু সেলফি তুলে দেখুন। এতে আপনি পরিষ্কার বুঝতে পারবেন যে কোথাও কোন সমস্যা আছে কিনা বা কোথাও পরিবর্তন লাগবে কিনা।

৬) মেকআপ আর্টিস্টের হাতে নিজেকে ছেড়ে দিয়ে চুপচাপ বসে থাকবেন না। আপনার চোখে কী রঙের মেকআপ(Makeup) হবে, ঠোঁটে কেমন লিপস্টিক হবে ইত্যাদি ব্যাপার আপনি নিজেই নির্বাচন করে দিন।

আরো পড়ুন  ত্বকের যত্নে পেঁপের দারুণ কিছু ব্যবহার জেনে নিন

৭) বিয়ে মানেই খোঁপা বা বেণী, এমন ধারণাই প্রতিষ্ঠিত হয়ে গেছে সবার মাঝে। এই খোঁপা বা বেণী কিন্তু সবাইকে মানায় না। তাই মেকআপ আর্টিস্ট যাই বলুক না কেন, আপনি এমন কোন স্টাইল বেছে নিন যেটা আপনার পছন্দ। কাছের মানুষদের পরামর্শও নিন।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *