যে ৫টি কাজে আপনি বুক জ্বালাপোড়ায় ভুগছেন

বুক জ্বালাপোড়ার সমস্যাটি সবারই কোনো না কোনো সময়ে দেখা যায়। আর ভারী খাওয়াদাওয়া হলে, বিশেষ করে উৎসবের সময়ে তা আরো বেশি হয়। অতিরিক্ত খেয়ে ফেলার পর দেখা যায় বুক ও গলা জ্বলে যাচ্ছে। সবাই জানেন ফাস্টফুড(fast food), তৈলাক্ত খাবার বা মশলাদার খাবারে বুক জ্বালাপোড়া করে। কিন্তু এ ছাড়াও কিছু খাবার ও কাজ দায়ী হতে পারে যা অনেকেই জানেন না।

১) অ্যাভোকাডো
অ্যাভোকাডো স্বাস্থ্যকর বটে। কিন্তু তা খাওয়ার পর আপনার পেটে এসিড বাড়তে পারে। কারণ অ্যাভোকাডোয় থাকে অনেকটা মনোস্যাচুরেটেড ফ্যাট। তা বেশি সময় পেটে থাকে বলে এসিড(Acid) বাড়াতে পারে ও এই এসিড গলা ও বুকে জ্বালাপোড়া তৈরি করতে পারে।

২) দুধ
এসিডের সমস্যা কমাতে অনেকেই এক গ্লাস ঠাণ্ডা দুধ(Cold milk) পান করে। কিন্তু এ কাজটি করার আগে দ্বিতীয়বার ভেবে নিন। কারণ ফুল ফ্যাট দুধের কারণেও আপনার পেটে এসিড বাড়তে পারে। তাই বুক জ্বালাপোড়া করলে বরং এন্টাসিড খেয়ে নেওয়াই ভালো।

আরো পড়ুন  দুধ গরম নাকি ঠাণ্ডা পান করা বেশি উপকার? আপনি কি জানেন?

৩) আঁটসাঁট পোশাক
স্টাইলিশ, ফ্যাশনেবল আঁটসাঁট পোশাক কিন্তু বুকে জ্বালাপোড়া তৈরি করতে পারে। কারণ পেটের ওপরে তা চেপে থাকে ও এসিড বাড়িয়ে দেয়। তাই একদম টাইপ পোশাক পরবেন না, তা যেন পেটের আশেপাশে কিছুটা আলগা হয় তার খেয়াল রাখুন।

৪) স্ট্রেস
স্ট্রেসে থাকলে পেটে এসিড(Acid) বেশি হয়। এর পাশাপাশি আমাদের ব্যথার অনুভূতিও বেড়ে যায়। এ কারণে জ্বালাপোড়ার অনুভুতি বেশি হয়।

৫) চকলেট
চকলেটের কিছু উপাদান যেমন থিওব্রোমিন ও ক্যাফেইন থাকে যা বুকে জ্বালাপোড়া তৈরি করতে পারে।

তাহলে কী করবেন? এসব খাবার খাওয়াই যাবে না? তা নয়। তবে এই খাবারগুলো খান কম পরিমাণে, আর সাথে রাখুন অ্যান্টাসিড।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *